Saturday , November 25 2017
শিরোনাম
হোম / শিরোনাম / হবিগঞ্জে চার শিশু হত্যায় তিনজনের ফাঁসি

হবিগঞ্জে চার শিশু হত্যায় তিনজনের ফাঁসি

ঢাকার ডাক ডেস্ক :হবিগঞ্জের বাহুবল উপজেলার সুন্দ্রাটিকি গ্রামের চাঞ্চল্যকর চার শিশু হত্যা মামলায় তিনজনের ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন আদালত। এ ছাড়া দুইজনের সাত বছর করে কারাদণ্ডাদেশ দেওয়া হয়েছে।

বুধবার দুপুরে সিলেটের দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক মকবুল আহসান আদালত এ রায় ঘোষণা করেন। এ ছাড়া এ মামলায় আনিত অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় তিনজনকে খালাস দেওয়া হয়েছে। এর আগে গতকাল চার শিশু হত্যা মামলার রায় ঘোষণার জন্য আজকের দিন ধার্য করেন এই আদালত।

ফাঁসি দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা হলেন- রুবেল, হাবিব ও উস্তার মিয়া।  জুয়েল ও শাহেদকে সাত বছর করে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। যাদের খালাস দেওয়া হয়েছে তারা হলেন-বাবুল, বিল্লাল ও আব্দুল আলিম।

২০১৬ সালের ১২ ফেব্রুয়ারি বিকেলে বাড়ির পাশের মাঠে খেলতে গিয়ে নিখোঁজ হয় হবিগঞ্জের বাহুবল উপজেলার সুন্দ্রাটিকি গ্রামের আবদাল মিয়া তালুকদারের ছেলে মনির মিয়া (৭), ওয়াহিদ মিয়ার ছেলে জাকারিয়া আহমেদ শুভ (৮), আব্দুল আজিজের ছেলে তাজেল মিয়া (১০) ও আব্দুল কাদিরের ছেলে ইসমাইল হোসেন (১০)।

মনির সুন্দ্রাটিকি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রথম শ্রেণিতে, তার দুই চাচাত ভাই শুভ ও তাজেল একই স্কুলে দ্বিতীয় ও চতুর্থ শ্রেণিতে পড়ত। আর তাদের প্রতিবেশী ইসমাইল ছিল সুন্দ্রাটিকি মাদ্রাসার ছাত্র।

১৭ ফেব্রুয়ারি সুন্দ্রাটিকি গ্রামের কাজল মিয়া নদীর পাশে মাটি কাটতে গিয়ে বালিচাপা অবস্থায় ৪ শিশুর লাশ দেখতে পান। পরে লাশ উত্তোলন করে ময়নাতদন্ত শেষে ওই দিন রাতে দাফন করা হয়।

এ ঘটনায় ৫ এপ্রিল মামলার তদন্ত কর্মকর্তা জেলা গোয়েন্দা পুলিশের প্রাক্তন অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোকতাদির হোসেন জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম কাউছার আলমের আদালতে আটজনকে আসামি করে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। গত ২৮ জুন দুপুরে জেলা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক কিরণ শংকর হালদার অভিযোগপত্র গ্রহণ করেন।

হবিগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ আদালতে ২০১৬ সালের ৭ সেপ্টেম্বর মামলার বিচারকার্য শুরু হয়। এ বছরের ১৫ মার্চ মামলাটি সিলেট বিভাগীয় দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে স্থানান্তর করা হয়েছিল।

Check Also

বিশ্বমানের গবেষণা বিশ্ববিদ্যালয় ও শিক্ষকদের জন্য গবেষণাগার প্রতিষ্ঠার সুপারিশ ইউজিসির

অনলাইন ডেস্ক : দেশে দক্ষ ফ্যাকাল্টি তৈরির উদ্দেশ্যে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক বিশ্বমানের একটি গবেষণা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *