Sunday , September 24 2017
হোম / লাইফস্টাইল / ত্বকের যত্নে গ্লিসারিন

ত্বকের যত্নে গ্লিসারিন

লাইফস্টাইল ডেস্ক : ত্বকের যত্নে গ্লিসারিনের ব্যবহার নতুন নয়। এটি আমাদের ত্বককে পুনরুজ্জীবিত করে। গ্লিসারিন সরাসরি ত্বকে প্রয়োগ করা যায় অথবা মুখের প্যাক ও মুখের মাস্কের উপাদান হিসেবে ব্যবহার করা যায়। গ্লিসারিন ত্বকের জন্য খুব ভালো ময়েশ্চারাইজার। শুষ্ক, ছোপ পড়ে যাওয়া বিবর্ণ চামড়ার জন্য এটি বেশ কার্যকর।

গ্লিসারিন ত্বকের ওপর থেকে ময়লা ও ধুলো সরায় ও চামড়াকে পরিষ্কার করে। গ্লিসারিনকে গোলাপ জলের সাথে মেশান এবং ত্বক পরিষ্কার করতে ব্যবহার করুন। রাতে শোওয়ার আগে গোলাপ জলে গ্লিসারিন মেশান। ভালো করে সেটা দিয়ে মুখ মুছুন। এটা নিয়মিত করুন যাতে চামড়া ভালো করে পরিষ্কার হয় ও বন্ধ কোষগুলো খোলে। এটা চামড়ার জন্য একটা খুবই উপকারী জিনিস।

গ্লিসারিন সরাসরি ত্বকে ব্যবহার করতে পারেন। একটা তুলোয় গ্লিসারিনে চুবিয়ে সেটা ত্বকের ওপর লাগান। গ্লিসারিন লাগানোর পরেই চামড়া নরম ও আর্দ্র থাকে।

ত্বকের পুষ্টি যোগাতে গ্লিসারিন খুব কার্যকর। তাই যে কোনো প্রসাধনীতে গ্লিসারিন ব্যবহার করা হয়। গ্লিসারিন ত্বকের পানির মাত্রা বা আর্দ্রতা বজায় রাখতে সাহায্য করে, যার ফলে চামড়া সুস্থ থাকে। গ্লিসারিনকে পুষ্টিদাতা হিসেবে ব্যবহার করতে গেলে আপনার দৈনন্দিন ব্যবহারের ময়েশ্চারাইজারের সাথে মিশিয়ে ব্যবহার করুন। মুখের প্যাক বা মাস্কে গ্লিসারিন যোগ করতে পারেন।

চামড়ার রোগ সারানোর ওসুধে বেশির ভাগ সময়ই গ্লিসারিন থাকে। নিয়মিত গ্লিসারিন ব্যবহার ত্বকের খুব ভালো যত্ন নেয়। তাই নিজের ত্বককে স্বাস্থ্যবান রাখতে নিয়মিত গ্লিসারিন ব্যবহার করুন।

গ্লিসারিন ত্বকের ব্রণ ও দাগ কমাতে সারাতে সাহায্য করে। এটার জন্য নিয়মিত রূপে গ্লিসারিন ব্যবহার করতে হয়। ব্রণের জায়গায় বা যেখানে দাগ আছে সেখানে ভালো করে গ্লিসারিন মাখুন। ধীরে ধীরে মুখের দাগগুলো মুছে যাবে এবং ত্বক পরিষ্কার হয়ে যাবে।

Check Also

রসগোল্লা বানাবেন যেভাবে

লাইফস্টাইল ডেস্ক : রসগোল্লা ছাড়া যেন উৎসবের আনন্দ অপূর্ণ থাকে বাঙালির। যেকোনও উৎসবে তো বটেই, …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *